October 22, 2021, 12:41 pm
Headlines
২২ অক্টোবর  কোভিড–১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ প্রতিবেদন দুর্যোগে প্রকৌশলীগণ সম্মুখ যোদ্ধার মতো কাজ করে যাচ্ছেন : পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধাদের চিকিৎসা দিতে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও বারডেম হাসপাতালের সমঝোতা স্মারক নবায়ন সিউলে বাংলাদেশ দূতাবাসে ই-পাসপোর্ট কার্যক্রমের উদ্বোধন দেশে উৎপাদিত ফাইভ-জি মোবাইল ফোন সেট যুক্তরাষ্ট্রে যাচ্ছে : মোস্তাফা জব্বার পবিত্র কোরআন অবমাননাকে কেন্দ্র করে সংঘটিত অপ্রীতিকর ঘটনা সম্পর্কে পুলিশের বক্তব্য ঐক্যবদ্ধ থাকলে কোন অপশক্তিই দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করতে পারবেনা : খাদ্যমন্ত্রী মেরিন ফিশারিজ একাডেমির ক্যাডেটদের দেশের অ্যাম্বাসেডর হতে হবে : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী ২১ অক্টোবর  কোভিড–১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ প্রতিবেদন জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবসে প্রধানমন্ত্রীর বাণী জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবসে রাষ্ট্রপতির বাণী Foreign Minister Sergey Lavrov’s remarks at the third meeting of the Moscow format consultations on Afghanistan সরকারি সেবায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্তিতে বাধা : ১০ দফা সুপারিশ টিআইবির  PM asks AL men to intensify vigilance for communal harmony Sweden will help Bangladesh to fight climate change : Swedish Ambassador CSOs demanded inclusive process from government to strengthen country’s interest in CoP 26 সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারী জাতির শত্রু : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী সুন্দরবনের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে স্ট্র্যাটেজিক এনভায়রনমেন্টাল ম্যানেজমেন্ট প্ল্যান করেছে সরকার : পরিবেশ ও বনমন্ত্রী বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ৩৬ লক্ষ টাকা ও শুকনো খাবার বরাদ্দ মালদ্বীপে পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী উদযাপিত
Treanding
সিউলে বাংলাদেশ দূতাবাসে ই-পাসপোর্ট কার্যক্রমের উদ্বোধন দেশে উৎপাদিত ফাইভ-জি মোবাইল ফোন সেট যুক্তরাষ্ট্রে যাচ্ছে : মোস্তাফা জব্বার পবিত্র কোরআন অবমাননাকে কেন্দ্র করে সংঘটিত অপ্রীতিকর ঘটনা সম্পর্কে পুলিশের বক্তব্য ঐক্যবদ্ধ থাকলে কোন অপশক্তিই দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করতে পারবেনা : খাদ্যমন্ত্রী মেরিন ফিশারিজ একাডেমির ক্যাডেটদের দেশের অ্যাম্বাসেডর হতে হবে : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী Foreign Minister Sergey Lavrov’s remarks at the third meeting of the Moscow format consultations on Afghanistan সরকারি সেবায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্তিতে বাধা : ১০ দফা সুপারিশ টিআইবির  Sweden will help Bangladesh to fight climate change : Swedish Ambassador CSOs demanded inclusive process from government to strengthen country’s interest in CoP 26 সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারী জাতির শত্রু : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী সুন্দরবনের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে স্ট্র্যাটেজিক এনভায়রনমেন্টাল ম্যানেজমেন্ট প্ল্যান করেছে সরকার : পরিবেশ ও বনমন্ত্রী বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ৩৬ লক্ষ টাকা ও শুকনো খাবার বরাদ্দ LDCs need Productive capacity building for sustainable graduation : Ambassador Rabab Fatima ফ্রাঙ্কফুর্ট আন্তর্জাতিক বইমেলায় বাংলাদেশ স্টলের উদ্বোধন করলেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী ইসলামের নামে ফেৎনা-বিভেদ সৃষ্টিকারীদের রুখে দাঁড়ান :তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ি ঘরে অগ্নিসংযোগকারীদের  অবশ্যই দৃষ্টান্তমূলক বিচারের মুখোমুখি হতে হবে : ধর্ম প্রতিমন্ত্রী PM to inaugurate Bangabandhu Bangladesh-China Friendship Exhibition Center on Thursday কোভিড-১৯ চ্যালেঞ্জ জয় করে বাংলাদেশ এ বছর ৫.৫% প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে : অর্থমন্ত্রী সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী কলিন পাওয়েলের মৃত্যুতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর শোক শান্তিপূর্ণ বাংলাদেশে সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের ছাড় দেয়া হবে না : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

বিদেশ থেকে ফিরে আসা নারী শ্রমিকদের অসহায় অবস্থা নিরসনে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন : বিলস্’র গবেষণা

Bangladesh Beyond
  • Updated on Monday, September 27, 2021
  • 48 Impressed

দেশে ফিরে আসা অভিবাসী নারী শ্রমিকদের নিয়ে বিলস্ এর গবেষণা

বিদেশ থেকে ফিরে আসা নারী শ্রমিকদের অসহায় অবস্থা নিরসনে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন : বিলস্’র গবেষণা

 

ঢাকা ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ :

পরিবারের ভাগ্য পরিবর্তনের আশায় বিদেশ গিয়ে ২৩% নারী শ্রমিক এক বছর পূর্ণ হওয়ার আগেই দেশে ফিরেছেন, ১৮% এক বছরের

সামান্য বেশি সময় থেকেছেন, ৫৫% নারী শ্রমিকের দেশে ফেরত আসা ছিল জবরদস্তিমূলক। বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব লেবার স্টাডিজ-বিলস্ এর “দেশে ফিরে আসা অভিবাসী নারী শ্রমিকদের সামাজিক ও অর্থনৈতিক অবস্থা”শীর্ষক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে।

আজ ২৭ সেপ্টেম্বর রাজধানীর ধানমন্ডিতে বিলস্ সেমিনার হলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে গবেষণা প্রতিবেদনটি উপস্থাপন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে গবেষণা প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন বিলস্ গবেষণা বিভাগের উপ-পরিচালক মোঃ মনিরুল ইসলাম। সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন বিলস্ নির্বাহী পরিষদ সদস্য সাকিল আখতার চৌধুরী, মোঃ আব্দুল ওয়াহেদ এবং পূলক রঞ্জন ধর,

বিলস্ পরিচালক নাজমা ইয়াসমীন, উপ-পরিচালক এম এ মজিদ প্রমুখ।

বিলস্ দেশের তিনটি জেলার (চট্টগ্রাম, যশোর এবং ফরিদপুর) ৩২৩ জন প্রত্যাবাসী অভিবাসী নারী শ্রমিকের উপর জরিপ কার্যক্রম

পরিচালনা করে। এছাড়া, গুণগত গবেষণা পদ্ধতি প্রয়োগ করে প্রাথমিক উৎস্যসমূহ থেকে প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ করা হয়। গবেষণায় দেখা যায়, দেশে ফেরত আসা প্রতি ৩ জন নারী শ্রমিকের মধ্যে ১ জনের অর্থনৈতিক অবস্থা আগের থেকে অবনতি

হয়েছে এবং তাদের মধ্যে সিংহভাগই তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে উদ্বিগ্ন। ৮৫% তাদের বর্তমান কাজ নিয়ে হতাশাগ্রস্ত এবং ৫৭%

তাদের জীবন ও জীবিকা নিয়ে চিন্তিত।

গবেষণায় দেখা গেছে, ৫২% বিদেশে জবরদস্তিমূলক শ্রমের শিকার হয়েছেন, ৬১% বিদেশে খাদ্য ও পানির অভাবে ভুগেছেন,

৭% যৌন এবং ৩৮% শারীরিক নির্যাতনের শিকার হয়েছেন।

বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকদের বর্তমান অর্থনৈতিক অবস্থা পর্যালোচনা করে দেখা গেছে, বিদেশ ফেরত ৬০% নারী শ্রমিক বেকার,

৬৫% শ্রমিকের নিয়মিত মাসিক কোন আয় নেই, ৬১% শ্রমিক এখনও ঋণের বোঝা বয়ে বেড়াচ্ছেন, ৭৫% শ্রমিকের কোন সঞ্চয়

নেই এবং ৭৩% শ্রমিক তাদের পরিবারের দৈনন্দিন চাহিদা পূরণে ব্যর্থ হচ্ছেন।

বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকদের শারীরিক স্বাস্থ্যের অবস্থা নাজুক। ৫৫% শ্রমিক শারীরিকভাবে অসুস্থ্য, ২৯% এর মানসিক অসুস্থতা রয়েছে এবং ৮৭% শ্রমিক মানসিক অসুস্থতার কোন

চিকিৎসা পায়নি। বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকরা সামাজিকভাবেও হেয় প্রতিপন্ন হচ্ছেন। পরিবার ও সমাজ তাদের সাথে বৈরী এবং অমানবিক আচরণ করে। ৩৮% নারী শ্রমিক বলছেন সমাজে তাদের নি¤œ শ্রেণীর চরিত্রহীন নারী বলে গণ্য করা হয়।

গবেষণায় দেখা গেছে, বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকরা তাদের পরিবার ও সমাজের কাছে অবহেলিত। অর্থনৈতিকভাবে পিছিয়ে পড়া পরিবারগুলোর মধ্যে তারা নিজেদের অভিবাসনের সিদ্ধান্তÍ নিজেরাই নিয়ে ছিলেন। বর্তমানে বেশীর ভাগেরই পরিবার বা সমাজে মতামতের কোন মূল্য নেই। তাদের কেউ গ্রাহ্য করে না। তাদের কেউ

বিশ^াস করে না। বিদেশ থেকে ফেরার সময় পরিবারের সদস্য দ্বারা বিমানবন্দরেই অযাচিত আচরনের শিকার হয়েছেন ১৭% শ্রমিক। ১৫% বিদেশ থেকে ফিরে আসা নারী তালাকপ্রাপ্ত হয়েছেন। ১১% নারী শ্রমিকের স্বামী তাদের ছেড়ে চলে গেছে এবং ২৮% নারী শ্রমিক তাদের দাম্পত্য জীবনে বিরূপ প্রভাবের সম্মুখীন হয়েছেন।

তবে এর ব্যাতিক্রমও রয়েছে। কিছু কিছু বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিক তাদের অবস্থা পরিবর্তন করতে সক্ষম হয়েছেন। তারা ভালো পরিবেশে কাজ করে, ভালো পরিমাণে রেমিট্যান্স আয় করেছেন এবং তাদের ভাল সঞ্চয় রয়েছে। তাদের নিয়মিত

আয়ের উৎস রয়েছে। তারা শারীরিক এবং মানসিকভাবেও সুস্থ্য।

সংবাদ সম্মেলনে বিলস্ নেতৃবৃন্দ বলেন, প্রত্যাবাসী অসহায় নারী শ্রমিকের অর্থনৈতিক ও সামাজিক পুনর্বাসনের বিষয়ে গুরুত্ব

নিয়ে কাজ করা দরকার। বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকদের প্রকৃত তথ্য সংগ্রহ এবং এর ধারাবাহিক পর্যালোচনা করা দরকার। এই গবেষণা তার একটি ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা মাত্র। গবেষণায় বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকদের আর্থ-সামাজিক অবস্থা, তাদের প্রতি বিদ্যমান সামজিক মনোভাব, তাদের পারিবারিক সম্পর্ক, সামাজিক ও অর্থনৈতিক পুর্নবাসনে

প্রতিবন্ধকতাসমূহ তুলে আনা হয়।

বিদেশ ফেরত নারী শ্রমিকদের উন্নয়নে বিলস্ এর গবেষণায় কিছু সুপারিশ তুলে ধরা হয়- প্রত্যাবাসী নারী শ্রমিকদের জন্য উপযুক্ত সামজিক সুরক্ষা ব্যবস্থা প্রণয়ন করা;

উপযুক্ত দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ এবং কর্মসংস্থান সৃষ্টির উপর জোর দেওয়া; সহজ শর্তে ঋণ প্রদানের পাশাপাশি উপযুক্ত বানিজ্যিক

পরামর্শ দেওয়া; মনো-সামাজিক পরামর্শসহ উপযুক্ত স্বাস্থ্য সহায়তা প্রদান; পদ্ধতিগত নিবন্ধন এবং তথ্য সংগ্রহের উপর জোর দেওয়া; উপযুক্ত পর্যবেক্ষণ

ব্যবস্থা প্রবর্তণ যা দায়িত্ব প্রাপ্ত কর্তৃপক্ষের জবাবদিহিতা নিশ্চিত করে; সংগঠন, নিবন্ধন, সচেতনতা বৃদ্ধি ও পর্যবেক্ষণ প্রক্রিয়ায়

ট্রেড ইউনিয়নকে সম্পৃক্ত করা এবং ক্রমান্বয়ে একটি পূর্ণাঙ্গ নীতি-কাঠামো প্রণয়নে উদ্দ্যোগী হওয়া। তাছাড়া, নীতি ও আইন বাস্তবায়নের বিষয়ে বিশেষ গুরুত্ব দেয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।

Social

More News