[Valid RSS]
October 6, 2022, 7:27 am
Treanding
GIZ Bangladesh’s training held on SDG localisation in Khulna ছোটদের সহজ প্রোগ্রামিং শিক্ষায় প্রকাশিত হল বাংলা স্ক্র্যাচ বই Ditching Russian gas no way to reach climate goals : Putin চট্টগ্রামে নিরাপদ খাদ্য বিষয়ে প্রচারনা কর্মসূচি সমাপ্ত Samsung brings month-long smartphone campaign On September 6–7, Vladimir Putin will make working trip to Vladivostok Two Russian embassy workers killed in ‘suicide bombing’ Shocked & devastated by the horrific attacks : Justin Trudeau  SSC, equivalent exams begin Sept 15: Dipu Moni Ten killed in Canadian stabbing spree Russia wants UN to pressure US : media Daraz Bangladesh Anniversary Campaign – Now LIVE! realme offers upto BDT 3400 off on occasion of Daraz’s 8th anniversary General Pharmaceuticals employees will receive insurance from MetLife চট্টগ্রামের কলেজিয়েট স্কুলে নিরাপদ খাদ্য বিষয়ে প্রচারনা কর্মসূচি শুরু Bangladesh a secular country, immediate action is taken whenever minorities are attacked: PM  Two more mortar shells from Myanmar land in Bangladesh OPPO launches killer device A57 in 15-20K price range ShareTrip and Grameenphone join hands to offer exciting travel privileges ড্যাপ ২০২২-২০৩৫ এর পরিপূর্ণ বাস্তবায়নের দাবী বিআইপির

৬ জুন এক নজরে বাংলাদেশ 

Bangladesh Beyond
  • Updated on Monday, June 6, 2022
  • 102 Impressed

৬ জুন এক নজরে বাংলাদেশ 

 

অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে দেশের শ্রম পরিস্থিতির উন্নয়নে কাজ করছে সরকার : শ্রম প্রতিমন্ত্রী

  ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান বলেছেন, সরকার অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে দেশের শ্রম পরিস্থিতির উন্নয়নে কাজ করছে। সরকার সফলতার সাথে বিভিন্ন ক্ষেত্রে নিয়োজিত শতভাগ শ্রমিককে করোনা ভ্যাকসিন প্রদান করেছে।

          আজ জেনেভায় আন্তর্জাতিক শ্রম সম্মেলনের ১১০তম অধিবেশনের প্ল্যানারি সেশনে বক্তৃতায় প্রতিমন্ত্রী এ সব কথা বলেন।

          শ্রম প্রতিমন্ত্রী তাঁর বক্তৃতায় শিশুশ্রম নিরসন এবং কাজে যোগদানে ন্যুনতম বয়স নির্ধারণে সরকার গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা গুরুত্বের সাথে তুলে ধরেন। এ ছাড়া তাঁর বক্ততায় করোনা মহামারি মোকাবিলায় বাংলাদেশ সরকারের বিশেষ সাফল্যের কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃঢ় নেতৃত্ব এবং সময়োপোযোগী পদক্ষেপের ফলে করোনা মহামারিকে সফলতার সাথে মোকাবিলা করা সম্ভব হয়েছে।

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ আইএলও’তে কাজের ক্ষেত্রে চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সময়াবদ্ধ রোডম্যাপ উপস্থাপন করেছে। তিনি বলেন, গত মার্চে আইএলও এর গভর্নিং বডির সভায় রোডম্যাপ বাস্তবায়নের দ্বিতীয় অগ্রগতি প্রতিবেদনও উপস্থাপন করা হয়েছে।

           দেশের আপামর জনসাধারণের সার্বিক জীবনমান উন্নয়নে সরকার গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের প্রতি আলোকপাত করে প্রতিমন্ত্রী তাঁর বক্তৃতায় শ্রমিকের অধিকার সুরক্ষা, শোভন কর্মপরিবেশ নিশ্চিতকরণ এবং শ্রমিকের পেশাগত স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়ে সরকার মালিক-শ্রমিকের ত্রিপক্ষীয় প্রচেষ্টাসমূহ গুরুত্বের সাথে উপস্থাপন করেন।

          আন্তর্জাতিক শ্রম সম্মেলনের এবারের আলোচনায় পেশাগত স্বাস্থ্য ও সেইফটি, কর্মসংস্থানের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা, শোভন কাজ, সামাজিক ও সংহতি অর্থনীতিতে শোভন কাজ এবং শিক্ষানবিশ কার্যক্রম প্রাধান্য পেয়েছে। উল্লেখ্য, বাংলাদেশ ইতোমধ্যে আইএলও এর ৮টি মৌলিক কনভেনশনের সবগুলো অনুসমর্থনকারী দেশের সংক্ষিপ্ত তালিকায় প্রবেশ করেছে।

          শ্রম প্রতিমন্ত্রী তাঁর বক্তৃতায় আইএলও এর নতুন মহাপরিচালক গিলবার্ট ফসুন হাংবো (Gilbert Fossoun Houngbo) কে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা জানান। আইএলও এর সকল ইতিবাচক কাজে বাংলাদেশ নতুন মহাপরিচালককে সহযোগিতা করবে বলে আশ্বাস দেন এবং একই সাথে বিদায়ি মহাপরিচালক গাই রাইডার এর কাজের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

          এসময় সংসদ সদস্য মোঃ আনোয়ার হোসেন হেলাল ও বেগম শামসুন্নাহার, মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ এহছানে এলাহী, সুইজারল্যান্ডে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এবং জেনেভাস্থ বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনের প্রতিনিধি মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান, বেপজার নির্বাহী চেয়ারম্যান আবুল কালাম মোহাম্মদ জিয়াউর রহমান, কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের মহাপরিদর্শক মোঃ নাসির উদ্দিন আহমেদ, শ্রম অধিদপ্তরের মহাপরিচালক খালেদ মামুন চৌধুরী, বাংলাদেশ এমপ্লয়ার্স ফেডারেশনের সভাপতি আরদাশির কবির, বিজিএমইএ এর সভাপতি ফারুক হাসান, জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি নূর কুতুব আলম মান্নানসহ শ্রম মন্ত্রণালয় উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রপতির সাথে বাংলাদেশে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূতের বিদায়ি সাক্ষাৎ

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদের সঙ্গে সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে বিদায়ি সাক্ষাৎ করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত Joao Tabajara De Oliveira Junior ।

          সাক্ষাৎকালে ব্রাজিলের বিদায়ি রাষ্ট্রদূত দায়িত্ব পালনে সহযোগিতা প্রদানের জন্য রাষ্ট্রপতির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

          রাষ্ট্রপতি বলেন, বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক ও বাণিজ্যিক সম্পর্ক সম্প্রসারণের সম্ভাবনা খুবই উজ্জ্বল। দু’দেশের বিদ্যমান এ সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে উভয় দেশের সরকারি-বেসরকারি বিশেষ করে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের সফর বিনিময়ের ওপর জোর দেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ।

          বাংলাদেশে সফলভাবে দায়িত্ব পালন করায় ব্রাজিলের বিদায়ি রাষ্ট্রদূতকে ধন্যবাদ জানান রাষ্ট্রপতি।

          রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের সচিব সম্পদ বড়ুয়া, সামরিক সচিব মেজর জেনারেল এস এম সালাহ উদ্দিন ইসলাম, প্রেস সচিব মোঃ জয়নাল আবেদীন এবং সচিব সংযুক্ত মোঃ ওয়াহিদুল ইসলাম খান এসময় উপস্থিত ছিলেন।

সীতাকুণ্ডের দুর্ঘটনায় আহত শ্রমিকদের চিকিৎসা সহায়তা প্রদান

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে বি এম কন্টেইনার ডিপোর ভয়াবহ অগ্নি-দুর্ঘটনায় চট্টগ্রামের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আহত শ্রমিকদের জরুরি চিকিৎসায় আর্থিক সহায়তা হিসেবে ৬৩ জনকে ৫০ হাজার টাকা করে প্রদান করা হয়েছে।

          আজ শ্রম মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মাসুদ করিম চট্টগ্রামের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এসকল শ্রমিকের প্রত্যেকের হাতে ৫০ হাজার টাকার চিকিৎসা সহায়তার চেক তুলে দেন। আগামীকাল আরো প্রায় ৫০ জন শ্রমিককে এ সহায়তার চেক প্রদান করা হবে। এ দুর্ঘটনায় আহত প্রত্যেক শ্রমিক এ সহায়তা পাবেন।

          এর আগে গতকাল শ্রম প্রতিমন্ত্রী স্মরণকালের এ ভয়াবহ দুর্ঘটনায় যেসকল শ্রমিক নিহত হয়েছেন তাদের প্রত্যেক পরিবারকে শ্রম মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে ২ লাখ টাকা এবং যারা আহত হয়েছেন তাদের প্রত্যেককে চিকিৎসার জন্য জরুরিভিত্তিতে ৫০ হাজার টাকা করে সহায়তার ঘোষণা দেন। আহতদের চিকিৎসায় আরো সহায়তার প্রয়োজন হলে তাও দেয়া হবে বলে প্রতিমন্ত্রী জানান।

          শ্রমিকদের চিকিৎসা সহায়তার চেক প্রদানকালে কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক মিনা মাসুদ উজ্জামান, শ্রম মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মোহাম্মদ আহমদ আলী, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মুমিনুর রহমান, জাতীয় শ্রমিক লীগের সহসভাপতি সফর আলী, বিভাগীয় শ্রম দপ্তরের পরিচালক এসএম এনামুল হক এবং কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের চট্টগ্রামের উপমহাপরিদর্শক আব্দুল্লাহ আল সাকিব মুবারাত উপস্থিত ছিলেন।

পদ্মা সেতু বাংলাদেশের সক্ষমতার প্রতীক : পানি সম্পদ উপমন্ত্রী

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম বলেছেন, পদ্মা সেতু হচ্ছে বাংলাদেশের ও জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের সক্ষমতার প্রতীক। আমাদের অর্থনৈতিক মুক্তির সংগ্রামের এক উজ্জ্বল মাইলফলক। শত্রুর মুখে ছাই দিয়ে শত বাধা উপেক্ষা করে নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু করে বঙ্গবন্ধুকন্যা বাংলাদেশের মর্যাদা বাড়িয়েছেন। তিনি প্রমাণ করেছেন সততা, স্বচ্ছতা ও সাহসিকা এবং দেশপ্রেম থাকলে কোন কিছুই অসাধ্য নয়।

          আজ শরীয়তপুর জেলা প্রশাসনের সঙ্গে ঢাকা থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে আগামী ২৫ জুন পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষ্যে করণীয় নির্ধারণী সভায় উপমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

          উপমন্ত্রী বলেন, পঁচিশে জুন স্বপ্নের পদ্মা সেতুর উদ্বোধন হতে যাচ্ছে। দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার মানুষের মিলনমেলা এবং উৎসবের জনস্রোত হবে পদ্মার পাড়। এই জনস্রোত সফল করা আমাদের দায়িত্ব। বঙ্গবন্ধুকন্যার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাতে সব শ্রেণি পেশার মানুষ হাজির হবেন পদ্মা পাড়ে। বিপুল আগ্রহ নিয়ে বাংলাদেশের সংগ্রামী মানুষ দুই চোখ ভরে আমাদের আত্মশক্তির এ প্রতীকটি দেখছে।

          উপমন্ত্রী আরো বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দু’জনই দক্ষিণ বাংলার মানুষ। বাবার মতোই বঙ্গবন্ধুকন্যাও এ অঞ্চলের মানুষের দুঃখ-কষ্ট বোঝেন। তাই ২০০১ সালের ৪ জুলাই তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে মাওয়া ফেরিঘাটের কাছেই এ সেতুর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০০৯ সালে সরকার গঠনের পর পদ্মা সেতু নির্মাণকে জাতীয়ভাবে গুরুত্বপূর্ণ বিবেচনা করে অগ্রাধিকার তালিকায় নিয়ে আসেন। শুরুতে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক, জাইকা, আইডিবি এ সেতুর অর্থায়নের অংশীদার হলেও পরবর্তী পর্যায়ে বিশ্বব্যাংক যুক্ত হয়। বঙ্গবন্ধু সেতু নির্মাণেও এ উন্নয়ন অংশীদাররা যুক্ত ছিল। কিন্তু তারা মিথ্যা অভিযোগ তুলে সরে দাঁড়ায়। কিন্তু বঙ্গবন্ধুকন্যা মাথা নিচু করেননি। পরে আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো সরে দাঁড়ালে শেখ হাসিনা নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণের ঘোষণা দেন।

           জেলা প্রশাসক পারভেজ হাসানের সভাপতিত্বে ইকবাল হোসেন অপু এমপি, পারভিন হক সিকদার এমপি, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অনল কুমার দেসহ জেলা প্রশাসনের সব ঊর্ধ্বতন কর্মকতারা উপস্থিত ছিলেন।

জ্ঞান ও শিক্ষার সংরক্ষণাগার হচ্ছে লাইব্রেরি : সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

 

সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেছেন, সভ্যতার পরিক্রমায় মানুষের চর্চিত চিন্তা-চেতনা, জ্ঞান-বিজ্ঞান, মনন, দর্শন গ্রন্থিত থাকে বইয়ের অক্ষরের মধ্যে। তাই জ্ঞান ও শিক্ষার সংরক্ষণাগার হচ্ছে লাইব্রেরি। জ্ঞানের আধার হিসাবে লাইব্রেরি হচ্ছে একটি জাতির সঠিক আলোর দিশারী।

 

আজ রাজধানীর বিএসএল ভবনস্থ গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তরের অস্থায়ী কার্যালয়ে গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তর আয়োজিত ‘প্রযুক্তির উন্নয়ন এবং আমাদের পাঠাগার’ শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

 

প্রতিমন্ত্রী বলেন, লাইব্রেরিগুলোকে মানুষের দোরগোড়ায় নিয়ে যাওয়া ও জনপ্রিয় করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। দেশব্যাপী লাইব্রেরিগুলোর ডিজিটালাইজেশনের প্রক্রিয়া সেই উদ্যোগেরই অংশ। তিনি বলেন, আমাদের লাইব্রেরিগুলোতে চাকরি প্রত্যাশীদের ভিড় বেশি, প্রকৃত জ্ঞান আহরণকারীদের সংখ্যা তুলনামূলকভাবে কম। লাইব্রেরি যাতে জ্ঞান-বিজ্ঞান চর্চার একটি আদর্শ কেন্দ্র হয়ে ওঠে সে পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। 

 

গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মোঃ আবুবকর সিদ্দিকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ আবুল মনসুর। সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন নেত্রকোণা সরকারি কলেজের বাংলা বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আফজালুর রহমান ভুঞা। আলোচনা করেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সাবিহা পারভীন এবং বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের পরিচালক কামাল হোসেন। স্বাগত বক্তৃতা করেন গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তরের পরিচালক মরিয়ম বেগম।

সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডে আহত রোগীদের জন্য শতভাগ চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করা হয়েছে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে মর্মান্তিক অগ্নিকাণ্ডে আহত সকল রোগীদের সব ধরনের চিকিৎসা সেবা শতভাগ নিশ্চিত করা হয়েছে। ঢাকায় শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ১৪ জন ও ঢাকা মেডিকেলে একজন রোগীর নিবিড় চিকিৎসা পরিচর্যাসহ চট্টগ্রামের আলাদা একটি বার্ন ইনস্টিটিউটেও সর্বোচ্চ গুরুত্ব সহকারে দিয়ে চিকিৎসা সেবা দেয়া হচ্ছে। বার্ন ইনস্টিটিউট ছাড়াও সংশ্লিষ্ট এলাকায় অন্যান্য জেনারেল হাসপাতালে পর্যাপ্ত চিকিৎসক, নার্সদের ২৪ ঘণ্টা ডিউটি নিশ্চিত করা হয়েছে।

          আজ রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে সীতাকুণ্ডের অগ্নিকাণ্ডে চিকিৎসাধীন রোগীদের সার্বিক চিকিৎসা সেবা পরিদর্শন শেষে এসব কথা বলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগের সচিব মোঃ সাইফুল হাসান বাদল, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন ও বাংলাদেশ আওয়ামী যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল এসময় উপস্থিত ছিলেন।

          মন্ত্রী বলেন, সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডে আহত রোগীদের চিকিৎসা সেবা সরাসরি পর্যবেক্ষণের জন্য ঢাকা থেকে বিশেষ চিকিৎসক টিম চট্টগ্রামে পাঠানো হয়েছে। আমরা সবখান থেকে সার্বক্ষণিক চিকিৎসার খোঁজখবর নিচ্ছি। প্রধানমন্ত্রী নিজেও বিষয়টি দেখাশোনা করছেন, খোঁজখবর নিচ্ছেন।

          সীতাকুণ্ডে মর্মান্তিক অগ্নিকাণ্ডে বর্তমানে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ১৪ জন রোগী চিকিৎসাধীন রয়েছে। যাদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় আইসিইউতে রাখা হয়েছে। ঢাকায় চিকিৎসা নিতে আশা আহত মোট ১৫ জনের মধ্যে ১১ জনের অবস্থা বর্তমানে কিছুটা ভালোর দিকে রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

          এর আগে স্বাস্থ্যমন্ত্রী মিরপুরের মাজার রোডের মাতৃসদন হাসপাতালে উপস্থিত হয়ে দেশের ৫টি সরকারি হাসপাতালের পরিচালকদের নিকট ৫টি উন্নতমানের অ্যাম্বুলেন্স গাড়ি তুলে দেন।

 

দলমত নির্বিশেষে আহতদের কল্যাণে কাজ করতে ভূমিমন্ত্রীর আহ্বান

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে কনটেইনার বিস্ফোরণের ঘটনায় আহত ব্যক্তিদের দেখতে আজ রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে গিয়েছেন ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী।

ইনস্টিটিউটের পরিচালক প্রফেসর ড. আবুল কালাম এ সময় ভূমিমন্ত্রীকে আহত ব্যক্তিবর্গের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে অবগত করেন। এ সময় ভূমি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব প্রদীপ কুমার দাস উপস্থিত ছিলেন। 

আহত ব্যক্তিদের খোঁজ নেওয়ার পর সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন ভূমিমন্ত্রী।

এ সময় সীতাকুণ্ডের মর্মান্তিক ঘটনায় যারা প্রাণ হারিয়েছেন তাঁদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে মন্ত্রী বলেন, অনেকেই প্রিয়জন হারিয়েছেন। অনেকের নিকটজন আজ চিকিৎসাধীন। এই মুহূর্তে আমাদের প্রথম লক্ষ্য সুচিকিৎসা নিশ্চিত করা যেন আহতরা দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠেন। এই ব্যাপারে সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হচ্ছে।

মন্ত্রী আরো বলেন, বিস্ফোরণ পরবর্তী আগুন নিয়ন্ত্রণে এবং আহতদের উদ্ধারে ফায়ার ফাইটার, সেনা সদস্যসহ উপস্থিত অনেকেই জীবনবাজী রেখে কাজ করে গিয়েছেন। আহতদের চিকিৎসায় ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীগণ আন্তরিকতার সাথে কাজ করে যাচ্ছেন। স্বেচ্ছাসেবকগণ জীবন রক্ষায় রক্ত সংগ্রহসহ নানা ধরনের সহায়তামূলক কাজ করে যাচ্ছেন। এই সংকটকালীন সময়ে দলমত নির্বিশেষে আমাদের এভাবে কাজ করে যেতে হবে।

এই সময় উপস্থিত সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে ভূমিমন্ত্রী বলেন, দুর্ঘটনার কারণ নিয়ে তদন্ত কমিটি রিপোর্ট না দেওয়া পর্যন্ত দুর্ঘটনার কারণের ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করা সমীচীন হবে না। আপাতত, আমাদের মূল লক্ষ্য হল আহত ব্যক্তিদের সুস্থতা নিশ্চিত করা এবং তাদের সহায়তা করা।

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সময়োচিত সাহসী সিদ্ধান্তের কারণে নিত্য প্রয়োজনীয়

পণ্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণ ও সরবরাহ স্বাভাবিকসহ সার্বিক পরিস্থিতি মোকাবিলা করা সম্ভব হচ্ছে : আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ্

 

বরিশাল, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

          পার্বত্য চট্টগ্রাম শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ কমিটির আহ্বায়ক (মন্ত্রী পদমর্যাদা) আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ্ বলেছেন, বৈশ্বিক মহামারি নভেল করোনা ভাইরাস মানব সভ্যতাকে এক চরম বিপর্যয়ের মুখে দাঁড় করিয়েছে। চলমান রাশিয়া-ইউক্রেনের ভয়াবহ যুদ্ধ ও করোনার প্রভাব বিশ্বের অন্যান্য দেশের ন্যায় বাংলাদেশেও শিক্ষা, স্বাস্থ্য, অর্থনীতি, কর্মসংস্থান ও দ্রব্যমূল্যসহ সকল সেক্টরে নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কার্যকর দিকনির্দেশনা, অক্লান্ত পরিশ্রম ও সময়োচিত সাহসী সিদ্ধান্তের কারণে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণ ও সরবরাহ স্বাভাবিকসহ সার্বিক পরিস্থিতি মোকাবিলা করা সম্ভব হচ্ছে।

           জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ্ এর সভাপতিত্বে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলায় সেরালে আজ তাঁর বাসভবন চত্বরে জেলা আওয়ামী লীগের এক বর্ধিত সভায় সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। এ সভায় জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তালুকদার মো. ইউনুসসহ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ও জনপ্রতিনিধিগণ উপস্থিত ছিলেন।

          সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক আসন্ন পদ্মা বহুমুখী সেতু উদ্বোধন অনুষ্ঠান সফল, বিএনপি কর্তৃক রাজনীতির নামে অপতৎপরতা, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর সরকারের বিরুদ্ধে অব্যাহত ষড়যন্ত্র রাজনৈতিকভাবে মোকাবিলার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। জেলা আওয়ামী লীগ ও এর অংগ সংগঠনের কার্যক্রম আরো জনকল্যাণমুখী এবং সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড জনসমক্ষে তুলে ধরার সঠিক কর্মকৌশল প্রণয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করা হয়। সভায় চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে কন্টেইনার ডিপো বিস্ফোরণে নিহতদের রুহের মাগফিরাত কামনা ও আহতদের আশু সুস্থতা কামনা করা হয়।

 

অগ্নিকাণ্ডে বিশাল ক্ষতি হয়েছে; দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয়েছে : নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী

 

সীতাকুণ্ড (চট্টগ্রাম), ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

           নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, অগ্নিকাণ্ডে বিশাল ক্ষতি হয়েছে। দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয়েছে। তদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার পর ব্যবস্থা নেয়া হবে। এক্ষেত্রে ‘জিরো টলারেন্স’ দেখানো হবে।

          প্রতিমন্ত্রী আজ চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে বিএম কন্টেইনার ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

          দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মোঃ এনামুর রহমান, শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, সংসদ সদস্য দিদারুল আলম, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ কামরুল হাসান, চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান এসময় উপস্থিত ছিলেন।

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, অগ্নি দুর্ঘটনার পর আর্তমানবতার সেবায় মানুষ এগিয়ে এসেছে। তাদেরকে আমরা সাধুবাদ জানাই। আমরা এরকম মানবিক বাংলাদেশ চাই। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আহতদের চিকিৎসার জন্য সবধরনের ব্যবস্থা নিয়েছেন। আমাদের সরকার জবাবদিহিতায় বিশ্বাসী। তদন্ত শেষে সবকিছুর জবাব দেয়া হবে।

          পরে প্রতিমন্ত্রীদ্বয় ও উপমন্ত্রী চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ডে আহতদের দেখতে যান এবং তাদের চিকিৎসার খোঁজখবর নেন।

 

দেশ পরিচালনায় শেখ হাসিনার বিকল্প নেই : সমাজকল্যাণমন্ত্রী

 

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

 

সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের ১৭ কোটি মানুষের আস্থা অর্জন করেছেন। দেশ পরিচালনায় শেখ হাসিনার বিকল্প নেই। 

 

আজ রাজধানীর আগারগাঁওয়ে সমাজসেবা অধিদফতর মিলনায়তনে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের নবনিযুক্ত সচিব মোঃ জাহাঙ্গীর আলমের সংবর্ধনা ও নবনিযুক্ত সহকারী সমাজসেবা অফিসারদের ওরিয়েন্টেশন কোর্সের সমাপনী ও সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য প্রদানকালে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। 

 

সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ জাহাঙ্গীর আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী মোঃ আশরাফ আলী খান খসরু।

 

মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি দেশের ক্ষমতা দখল করে হাজার হাজার মুক্তিযোদ্ধাকে নির্বিচারে হত্যা করেছিল। দেশ থেকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ভূলুণ্ঠিত করতে চেয়েছিল, এ দেশের জনগণ তাদের ষড়যন্ত্র সফল হতে দেয়নি। 

 

বর্তমান সরকার জনগণের সরকার উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, সরকার দেশের অসহায় দুস্থ মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় ভাতার পরিমাণ ও ভাতা গ্রহীতার সংখ্যা বাড়িয়েছে। ভাতা বিতরণে স্বচ্ছতার জন্য জিটুপি পদ্ধতিতে ভাতা বিতরণ করছে।

 

সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বলেন, সরকার নির্বাচনি ইশতেহারে দেয়া প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে কাজ করছে। জনগণের সার্বিক অধিকার নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রী সংগ্রাম করে যাচ্ছেন। 

পরে মন্ত্রী প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে সনদপত্র তুলে দেন।

 

এবছরও দেশে পর্যাপ্ত পরিমাণ চাল উৎপাদন হয়েছে ;কৃষিমন্ত্রী

ঘাটাইল (টাঙ্গাইল), ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :

 

কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, আজকের আওয়ামী লীগ যে কোনো সময়ের তুলনায় অনেক সুসংহত, শক্তিশালী ও সচেতন এবং যে কোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় সক্ষম। দলের এই অবস্থাকে ধরে রাখতে হবে। সেজন্য, যারা বিভিন্ন অপকর্মে জড়িত ও শৃঙ্খলাবিরোধী কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে দলের সুনাম ক্ষুণ্ন করছে, তাদেরকে দলের নেতৃত্বে আনা যাবে না। দলের বিপদে-আপদে সকল আন্দোলন সংগ্রামে যারা সামনে থাকবে তাদেরকে নেতা নির্বাচন করতে হবে, দলে জায়গা দিতে হবে।

 

আজ টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

 

মন্ত্রী বলেন, রাজাকার, আলবদর, বিএনপিসহ স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি যারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিল, তারাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার জন্য ‘পঁচাত্তরের হাতিয়ার গর্জে উঠুক আরেকবার’ বলে স্লোগান দিচ্ছে। তাদের উদ্দেশে বলতে চাই, ‘৭৫ সালে আমরা বুঝতে পারি নাই। বঙ্গবন্ধু ছিলেন অসীম সাহসী,  তাঁর হৃদয় ছিল আকাশের মতো উদার, সমুদ্রের মতো বিশাল। তিনি কিছু মানুষকে, কিছু কুচক্রীকে বিশ্বাস করেছিলেন। কিন্তু আজকের সুসংহত ও শক্তিশালী আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা যেকোন মূল্যে এই অপশক্তির মূলোৎপাটন করবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ বিশ্বের নেত্রী,  মানবতার নেত্রী। তাঁকে হত্যা করতে চাইলে এ দেশের জনগণ  ও সারা বিশ্বের নির্যাতিত মানুষ ঐক্যবদ্ধভাবে তাঁর পাশে দাঁড়াবে।

 

ভরা মৌসুমেও চালের দাম না কমার প্রসঙ্গে ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক বলেন, করোনা,  ইউক্রেন- রাশিয়া যুদ্ধ, আন্তর্জাতিক বাজারে দামবৃদ্ধিসহ নানা কারণে চালের দাম কিছুটা বেড়েছে। শীঘ্রই চালের বাজার স্বাভাবিক হয়ে আসবে। তিনি বলেন, তবে কৃষিমন্ত্রী হিসাবে বলতে চাই, এবছরও পর্যাপ্ত পরিমাণ চাল উৎপাদন হয়েছে। দেশে খাদ্য নিয়ে কোনো হাহাকার হবে না, খাদ্যের কোনো সংকট হবে না। আমাদের যে সম্পদ রয়েছে, বৈদেশিক মুদ্রার যে রিজার্ভ রয়েছে, তাতে যে কোন পরিস্থিতি আমরা মোকাবিলা করতে পারব।

 

সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক শামসুন নাহার চাঁপা, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক মেহের আফরোজ চুমকি, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য রিয়াজুল কবীর কাওছার, উদ্বোধক হিসেবে টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান খান ফারুক, প্রধান বক্তা হিসেবে সাধারণ সম্পাদক জোয়াহেরুল ইসলাম এমপি বক্তব্য রাখেন। উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম লেবু সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন।

 

নাগরিক সেবা প্রদানে নিষ্ঠা ও সততার সাথে দায়িত্ব পালন করতে হবে : পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :     

নাগরিক সেবা প্রদানে নিষ্ঠা ও সততার সাথে কর্মকর্তাদের দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানিয়েছেন পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য।

আজ আগারগাঁওয়ে সমবায় অধিদপ্তরের সম্মেলন কক্ষে জেলা সমবায় কর্মকর্তা সম্মেলন ২০২২ এর দুই দিন ব‍্যাপী সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এই আহ্বান জানান।

প্রতিমন্ত্রী বক্তব্যের শুরুতেই চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনার ডিপোতে ভয়াবহ বিস্ফোরণ ও অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেন। একইসঙ্গে তিনি আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, কর্মমুখী প্রশিক্ষণ সুষ্ঠুভাবে কর্মসম্পাদনে সহায়তা করে। তিনি এসময় নাগরিক সেবাকে আরো গতিশীল ও জনবান্ধব করে গড়ে তুলতে মাঠপর্যায়ে কর্মরতদের যথাযথ প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণের তাগিদ দেন। জাতির পিতা সমবায়ের প্রতি কতটা অন্তপ্রাণ ছিলেন তার উল্লেখ করে তিনি বলেন, স্বাধীনতা পরবর্তীকালে দেশ গঠনের লক্ষ্যে জাতির পিতার অন্যতম একটি উদ‍্যোগ ছিল সমবায় ব্যবস্থা। বঙ্গবন্ধু বিশ্বাস করতেন প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবন-জীবিকার উন্নয়নে সমবায় ব্যবস্থার বিকল্প নেই। তাই তিনি সুষম বন্টনের মাধ্যমে সকল শ্রেণি পেশার লোকদের উন্নয়ন করতে চেয়েছিলেন। বতর্মান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও ঠিক একইভাবে দেশের সামগ্রিক উন্নয়ন, বিশেষ করে গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে সমবায়কে বিশেষ গুরুত্ব প্রদান করছেন। তিনি আরো বলেন, পৃথিবীতে সমবায় একটি প্রতিষ্ঠিত ব‍্যবস্থা। দক্ষিণ কোরিয়া, ভিয়েতনাম, জাপান, ভারত, ব্রিটেনসহ বিশ্বের অনেক দেশ সমবায় ব্যবস্থাপনায় বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করে স্ব স্ব দেশের আর্থ সামাজিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে।

দেশের উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণের আহ্বান জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, আপনাদের প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান, মেধা ও অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে সম্মিলিতভাবে দেশের উন্নয়নকে আরো বেগবান করবেন। সমন্বিতভাবে একই লক্ষ্য, উদ্দেশ্যে নিয়ে কাজ করলে সফলতা আসবেই। জনবান্ধব সেবা নিশ্চিত করতে হলে সবাইকে একাগ্রচিত্তে নিষ্ঠা ও সততার  সাথে দায়িত্বপালন করতে হবে।

সমবায় অধিদপ্তরের নিবন্ধক ও মহাপরিচালক ড. মোঃ হারুন-অর-রশিদ বিশ্বাসের সভাপতিত্বে জেলা সমবায় কর্মকর্তা সম্মেলন অনুষ্ঠানে অন‍্যান‍্যের মধ‍্যে অতিরিক্ত নিবন্ধক মোঃ আহসান কবীর, সমবায় একাডেমির অধ‍্যক্ষ অঞ্জন কুমার সরকারসহ সমবায় অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

 

ব্যবসায়ীদের লাইসেন্সিংসহ কোনো সেবা গ্রহণ করতে আর আমদানি-রপ্তানি অফিসে যেতে হবে না : বাণিজ্যমন্ত্রী

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :      

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ এখন আর স্বপ্ন নয় বাস্তব। বাংলাদেশ এখন স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে কাজ করে যাচ্ছে। ডিজিটাল বাংলাদেশের অনলাইন শতভাগ সেবা দিচ্ছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন আমদানি ও রপ্তানি প্রধান নিয়ন্ত্রকের দপ্তর। স্বাধীনতার ৫০ বছরে ৫০ ধরনের  সেবা অনলাইনে প্রদান নিশ্চিত করা হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে সেবা প্রদানের পরিমাণ ৫২টি। ব্যবসায়ীগণ এখন এ সকল সেবা বাসায় বসে অনলাইনে গ্রহণ করতে পারবেন। এ দপ্তরের কোনো সেবা গ্রহণের জন্য সিসিআইএন্ডই অফিসে যেতে হবে না। এটা সরকারের জন্য বড় সফলতা। ডিজিটাল বাংলাদেশের ডিজিটাল অনলাইন সেবা দেশের ব্যবসা-বাণিজ্যকে অনেক এগিয়ে নিবে।

আজ ঢাকায় আমদানি ও রপ্তানি প্রধান নিয়ন্ত্রকের দপ্তর আয়োজিত স্বাধীনতার ৫০ বছরে ৫০ ধরনের সেবা অনলাইনে প্রদান শীর্ষক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য বিগত যে কোনো সময়ের চেয়ে গতিশীল হয়েছে। ব্যবসার পরিধি বেড়েছে। আমাদের কাছে ব্যবসায়ীদের প্রত্যাশা অনেক। দেশের মানুষ যে কোনো ধরনের হয়রানি ছাড়া সহজেই বাণিজ্য সংক্রান্ত সেবা পেতে চায়। সততা ও দক্ষতা দিয়ে মানুষের সে সেবা প্রদান নিশ্চিত করতে হবে। মানুষের প্রত্যাশা পূরণে সকলকে কাজ করতে হবে। চলতি অর্থবছরে ৫১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার রপ্তানি আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল, এবার প্রকৃত রপ্তানি ৬০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারর কম হবে না। আগামী দুই বছর পর বাংলাদেশের রপ্তানি আয় হবে ৮০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

মন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশকে সোনার বাংলা গড়ে তোলার স্বপ্ন দেখেছিলেন। অনলাইনে ব্যবসায়ীদের জন্য সকল সেবা নিশ্চিত করে দায়িত্বশীল অবদান রাখতে হবে। আমরা সবাই নিজ নিজ অবস্থান থেকে সততা ও দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করলে সোনার বাংলা গড়তে বেশি সময় প্রয়োজন হবে না।

উল্লেখ্য, ব্যবসায়ীদের জন্য ডিজিটাল সেবা নিশ্চিত করতে সরকারের আমদানি ও রপ্তানি প্রধান নিয়ন্ত্রকের দপ্তর ২০১৯ সালে ১ জুলাই থেকে অনলাইন সিস্টেম “অনলাইন লাইসেন্সিং মোডুল (ওএলএম)” কার্যক্রম শুরু করে।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশনের চেয়ারপারসন মোঃ মফিজুল ইসলাম, এফবিসিসিআই’র প্রেসিডেন্ট মোঃ জসিম উদ্দিন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন আমদানি ও রপ্তানি অফিসের প্রধান নিয়ন্ত্রক শেখ রফিকুল ইসলাম।

সরকার ও ইন্ডাস্ট্রিকে তরুণদের সাথে যৌথভাবে কাজ করতে হবে : পরিকল্পনামন্ত্রী

ঢাকা, ২৩ জ্যৈষ্ঠ (৬ জুন) :     

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, দেশে ব্লকচেইন প্রযুক্তিকে এগিয়ে নিতে সরকার ও ইন্ডাস্ট্রিকে তরুণ প্রজন্মের সাথে যৌথভাবে কাজ করতে হবে। পরিবর্তনশীল বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে অগ্রসরমান প্রযুক্তি ব্লকচেইন ব্যবহার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

মন্ত্রী আজ বাংলাদেশ কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে ‘বাংলাদেশ ব্লকচেইন অলিম্পিয়ার্ড-২০২২’ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

তরুণ প্রজন্মই পারে সংকটকে সুযোগে পরিণত করতে উল্লেখ করে আব্দুল মান্নান বলেন, তরুণ প্রজন্ম নতুন নতুন প্রযুক্তিকে আয়ত্ত করছে প্রতিনিয়ত। ব্লকচেইন এর উন্নয়ন ও বিকাশে তরুণরা এগিয়ে আসবে বলে তিনি উল্লেখ করেন। ব্লকচেইন অলিম্পিয়ার্ড দেশের তরুণদের জন্য উদ্ভাবনী ধারণা বিকাশে সুবর্ণ সুযোগ বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

মন্ত্রী বলেন, প্রতিকূলতা ও বৈরিতার মধ্যেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার আধুনিকায়ন ও অগ্রসরমান প্রযুক্তির ক্ষেত্রে দৃঢ়তার সাথে এগিয়ে যাচ্ছে। সরকারের পক্ষ থেকে নেয়া সুযোগ কাজে লাগাতে উদ্ভাবনী ও প্রতিভাবান তরুণসহ সকল তরুণদের প্রতি তিনি আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক ড. এম আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে সংসদ সদস্য অপরাজিতা হক এবং বাংলাদেশ ব্লকচেইন অলিম্পিয়ার্ডের অ্যাডভাইজার প্রফেসর মুহাম্মদ জাফর ইকবাল অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন।

Read us@googlenews

Social

More News
© Copyright: 2020-2022

Bangladesh Beyond is an online version of Fortnightly Apon Bichitra 

(Reg no: DA 1825)

Developed By Bangladesh Beyond