[Valid RSS]
August 18, 2022, 1:28 am
Treanding
Wasfia Nazreen returned home after conquering ‘Chhogori-K2’ Globe witnessing strongest heat wave in six decades জন্মাষ্টমী উপলক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতির বাণী   Unscrupulous traders are taking advantage of fuel price hike: Tipu realme is Entering the Second Stage of Growth : Sky Li, realme CEO APAC Outlook : Surviving the Year’s Rocky and Uneven Start APAC Chartbook: The Power of Prices Delta Brac Housing Finance Corp. Ltd gets new name DBH Finance PLC US wants to prolong Ukraine conflict : Putin Russian President addressed 10th Moscow Conference on International Security Russia warns of ‘direct military clash’ with US Explosions rock Crimea : Ukrainian attack suspected আন্তঃ ক্যান্টনমেন্ট বিতর্ক প্রতিযোগিতা- ২০২২ এর উদ্বোধন উত্তরার বিআরটি প্রকল্পের দুর্ঘটনায় দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি রোড সেফটি ফাউন্ডেশনের  চা-শ্রমিকদের নিকট গ্রহণযোগ্য যৌক্তিক মজুরি নির্ধারণের আহবান টিআইবির Prayers offered for Bangabandhu at PMO Launch fare increased by 30 percent ECNEC approves 6 projects involving Tk 2,504.75cr Experts suggested reassessment of the country’s maternal, child health programs & policies Russia and UN discuss crisis at nuclear plant

WASH Budget for FY2022-23 falls short to-reach marginalized people : experts

Bangladesh Beyond
  • Updated on Tuesday, June 28, 2022
  • 123 Impressed

WASH Budget for FY2022-23 falls short to-reach marginalized people : experts

 

Dhaka June 28 2022 :

 

At a press conference today, speakers addressed the budgetary allocations under safely managed sanitation, environment and capacity-building show a surprising decline in the WASH allocation under ADP budget FY22-23 in the proposed National Budget. They raised concern this will slow down the country’s effort to achieving SDGs targets by 2030.

 

They said the proposed budget of FY2022-23 finds an upward trend in allocation in haor and hilly regions. This spirit should be scaled up in coastal and char lands to ensure no one is left behind.

However, speakers stressed proper attention in selecting Annual Development Programme projects and the need to reduce the WASH allocation gap across rural and hard-to-reach areas.

They also  identified the current budget falls short in addressing emerging challenges in the remote areas of marginalized communities.

The conference was jointly arranged by WaterAid along with, PPRC, FANSA-BD, FSM Network, Bangladesh Water Integrity Network (BaWin), Sanitation and Water for All, End Water Poverty, MHM Platform, UNICEF and WASH Alliance International at National Press Club on Tuesday.

An analysis by the Power and Participation Research Center (PPRC), in collaboration with WaterAid, found that the WASH ADP allocation increased by 5.44% compared to an overall ADP increase of 7.5%. The total WASH Budget in ADP budget in the proposed budget is BDT118.2 billion of BDT 2460.66 billion of ADP allocation.  

Though there have been some positive steps to address spatial inequities, there is little consistency across the sector. Haor and hilly areas have received positive attention, but not chars and coastal areas.

Meanwhile, intra-urban inequities persist. The speakers remommended  bringing more consistency to the spatial allocation of WASH ADP. The decline in FSM allocation will hinder the aim to increase sanitation coverage across the country meeting . A further suggestion was made to review the proposed budget and examine this issue more closely and ensure increased FSM allocation to address the emerging WASH challenges, said the speakers.

There is a slightly increased allocation to hygiene seen as a positive step, but implementing it through the ministry of health alone will not portray the required results for the entire country.A multi-agency holistic policy approach should be adopted as a priority.

Dr. Hossain Zillur Rahman, Eminent Economist, Executive Chairman, PPRC and Hossain Ishrath Adib, Acting Country Director of WaterAid, and representatives from WASH networks spoke at the programme, among others, WASH specialists, including journalists and development workers.

 

 

 

প্রান্তিক ও দূরবর্তী এলাকার মানুষের ওয়াশ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় ২০২২-২০২৩ অর্থবছরের ওয়াশ বাজেট অপ্রতুল বলে জানালেন বিশেষজ্ঞরা  

 

ঢাকা ২৮ জুন ২০২২ :

 

প্রস্তাবিত জাতীয় বাজেটে ২০২২-২০২৩ অর্থবছরের বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে (এডিপি) ওয়াশ খাতের বরাদ্দ বাড়লেও তা সার্বিক এডিপি বৃদ্ধির তুলনায় কম। আজ জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে নিরাপদ স্যানিটেশন, পরিবেশ ও সক্ষমতা তৈরির বিষয়ে বাজেটে যে বরাদ্দ রাখা হয়েছে তা অপ্রতুল হয়েছে বলে মন্তব্য করেন বক্তারা। এর ফলে ২০৩০ সালের মধ্যে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপগুলো ধীরগতিতে বাস্তবায়িত হবে বলেও তারা আশঙ্কা প্রকাশ করেন। 

 

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, ২০২২-২০২৩ অর্থবছরের জন্য প্রস্তাবিত জাতীয় বাজেটে আঞ্চলিক বৈষম্য কমানোর ক্ষেত্রে কিছু ইতিবাচক প্রবণতা রয়েছে। হাওর এবং পার্বত্য এলাকায় বরাদ্দ কিছুটা বেড়েছে। তবে চর এবং উপকূলীয় এলাকায় বরাদ্দ বাড়েনি। বক্তারা বলেন, এ ধারাটি উপকূলীয় অঞ্চল ও চরে বসবাসকারী মানুষের জন্যও যথাযথভাবে অব্যাহত রাখা উচিত, যাতে করে কেউ যেনো পিছিয়ে না পড়ে। বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির আওতায় প্রকল্পগুলো নির্বাচনের ক্ষেত্রে সঠিকভাবে মনোযোগী হওয়া এবং গ্রাম ও প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের ওয়াশ খাতের বরাদ্দের ব্যবধান ঘোচানোর ওপর বক্তারা গুরুত্বারোপ করেন। দূরবর্তী অঞ্চলের প্রান্তিক কমিউনিটির মানুষের জন্য আসন্ন চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবিলায় বর্তমান বাজেটে যে বরাদ্দ রাখা হয়েছে তা কম বলেও অনুষ্ঠানে বক্তারা মতামত তুলে ধরেন।     

 

ওয়াটারএইড, পিপিআরসি, ফানসা-বিডি, এফএসএম নেটওয়ার্ক, বাংলাদেশ ওয়াটার ইন্টিগ্রিটি নেটওয়ার্ক (বাউইন), স্যানিটেশন অ্যান্ড ওয়াটার ফর অল, এন্ড ওয়াটার পোভার্টি, এমএইচএম প্ল্যাটফর্ম, ইউনিসেফ ও ওয়াশ অ্যালায়েন্স ইন্টারন্যাশনাল যৌথভাবে জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। 

 

ওয়াটারএইডের সহযোগিতায় পাওয়ার অ্যান্ড পার্টিসিপেশন রিসার্চ সেন্টারের (পিপিআরসি) একটি বিশ্লেষণে দেখা গেছে, সামগ্রিক এডিপি ৭.৫ শতাংশ বৃদ্ধির তুলনায় ওয়াশ এডিপি বরাদ্দ ৫.৪৪ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রস্তাবিত বাজেটের এডিপি বাজেটে মোট ওয়াশ বাজেট হলো এডিপি বরাদ্দের ২৪৬০.৬৬ বিলিয়ন টাকার মধ্যে মাত্র ১১৮.২ বিলিয়ন।

 

স্থানিক বৈষম্য চিহ্নিত করে এবারের বাজেটে বেশ কিছু ইতিবাচক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে; তবে, কিছু খাতে বাজেট বরাদ্দের ক্ষেত্রে ধারাবাহিকতার অভাব রয়েছে বলে তারা মনে করেন। হাওর ও পার্বত্য এলাকায় বাজেট বরাদ্দ বেশ ইতিবাচক ছিলো। তবে, চর ও উপকূলীয় এলাকায় বাজেট বরাদ্দ পর্যাপ্ত ছিলো না। ইতিমধ্যে, শহরাঞ্চলের মধ্যে বাজেট বরাদ্দের বৈষম্য এখনো বিরাজমান রয়েছে। ওয়াশ এডিপিতে স্থানিক বৈষম্য দূরীকরণে বরাদ্দকৃত অর্থের সঠিক বণ্টন নিশ্চিত করার জন্য সুপারিশ করেন বক্তারা। এফএসএম খাতের বরাদ্দ হ্রাসের বিষয়টি দেশজুড়ে স্যানিটেশন কাভারেজ বৃদ্ধির বিষয়টিকে বাধাগ্রস্ত করবে। তাই, প্রস্তাবিত বাজেটে এ বিষয়টি নিবিড়ভাবে পুনর্বিবেচনা ও পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা উচিত এবং ওয়াশ খাতের আসন্ন চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবিলা করার জন্য এফএসএম খাতে বরাদ্দ বাড়ানোর বিষয়টি নিশ্চিত করার সুপারিশও করেন বক্তারা।      

 

হাইজিন খাতে কিছুটা বরাদ্দ বৃদ্ধির বিষয়টি নিঃসন্দেহে ইতিবাচক একটি পদক্ষেপ। তবে, শুধুমাত্র স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে এর বাস্তবায়ন করলে পুরো দেশজুড়ে ওয়াশ খাতের কাঙ্খিত ফলাফল অর্জন করা সম্ভব হবে না। তাই, অগ্রাধিকার ভিত্তিতে মাল্টি-অ্যাজেন্সির মাধ্যমে সামগ্রিক নীতি কৌশল গ্রহণ করা উচিত।  

 

পিপিআরসি’র নির্বাহী চেয়ারম্যান প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদ ড. হোসেন জিল্লুর রহমান, ওয়াটারএইডের ভারপ্রাপ্ত কান্ট্রি ডিরেক্টর হোসেন ইশরাত আদিব ও ওয়াশ নেটওয়ার্কের প্রতিনিধিগণ সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য প্রদান করেন। এছাড়া, সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন ওয়াশ স্পেশালিস্ট, সাংবাদিক ও উন্নয়ন কর্মীরা।  

 

Read us@googlenews

Social

More News
© Copyright: 2020-2022

Bangladesh Beyond is an online version of Fortnightly Apon Bichitra 

(Reg no: DA 1825)

Developed By Bangladesh Beyond